খবরটি হঠাৎ করেই জেনেছি

সময়ের জনপ্রিয় তারকাদের একজন পরীমনি। গতকাল দেশের ২৬টি সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে তার অভিনীত ছবি ‘বিশ্বসুন্দরী’। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেছেন সিয়াম আহমেদ। এছাড়াও সম্প্রতি বিশ্বখ্যাত আমেরিকান বিজনেস ম্যাগাজিন ফোর্বস-এ ‘১০০ ডিজিটাল তারকা’ জরিপে স্থান করে নিয়েছেন তিনি। ছবি ও অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা হয় তার সঙ্গে-

অনেক দিন পর আপনার ছবি মুক্তি পেলো। কেমন সাড়া পাচ্ছেন? উত্তরে পরীমনি বলেন, ‘গতকাল থেকেই পরিচিতজনরা ফোনে, ফেসবুকে “বিশ্বসুন্দরী”র প্রশংসা করে যাচ্ছে। সবাই শুভেচ্ছা জানাচ্ছে। গতকাল আমরা কোনো সিনেমা হলে যেতে পারিনি। আজ ঢাকার হলগুলোতে যাবো। শুরুটা করবো বসুন্ধরার স্টার সিনেপ্লেক্স দিয়ে। সিনেপ্লেক্সের ৪ নং হলে আজ থেকে “বিশ্বসুন্দরী” চলবে। সেখান থেকেই আজ আমাদের হল ঘুরে বেড়ানোর যাত্রা শুরু।’

দর্শক ‘বিশ্বসুন্দরী’ কেন দেখবে? উত্তরে পরী বলেন, ‘দর্শক বিনোদনের জন্য যে ধরনের গল্প খোঁজেন তা আছে এই ছবিতে। এই সময়ের দর্শকদের চাহিদা কেমন, তা বুঝেই এর গল্প লিখেছেন রুম্মান রশীদ খান। এছাড়াও ছোটপর্দার জনপ্রিয় নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী খুব যত্ন নিয়ে ছবিটি নির্মাণ করেছেন। আর আমার ও সিয়ামের একসঙ্গে এটাই প্রথম কাজ। সব মিলিয়ে বলতে পারি, ছবিটি দেখে দর্শক হতাশ হবেন না।’

বিশ্বখ্যাত ম্যাগাজিন ফোর্বস-এ ‘১০০ ডিজিটাল তারকা’ জরিপে স্থান পেয়েছেন। খবরটি শুনে কেমন লাগছে? জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘ফোর্বসের তালিকা নিজের নাম দেখে এখনও ঘোরের মধ্যে আছি। খবরটা যত না আমাকে আনন্দ দিয়েছে, এর চেয়ে বেশি বিস্মিত করেছে। এই তালিকায় যাদের পাশে আমার নাম যুক্ত হয়েছে, তারা সবাই বিশ্বখ্যাত শিল্পী। সেই তালিকায় বাংলাদেশি শিল্পী হিসেবে আমার নাম সত্যি খুব আনন্দের।’

ফোর্বসের পক্ষ থেকে আপনার সঙ্গে কেউ যোগাযোগ করেছে? উত্তরে পরী বলেন, ‘এই জরিপ নিয়ে আমার সঙ্গে কেউ আলোচনা কিংবা যোগাযোগ করেনি। খবরটি হঠাৎ করেই জেনেছি। তালিকা প্রকাশের পর একের পর এক ফোন আর এসএমএস আসছিল, সবাই শুভেচ্ছা আর অভিনন্দন জানাচ্ছে। প্রথমে ভেবেছিলাম, “বিশ্বসুন্দরী”র জন্য। পরে মূল ঘটনা শুনে নিজেই হতবাক হয়ে যাই।’

এমন আরো সংবাদ

Back to top button