মালয়েশিয়ায় দূতাবাসে প্রবাসী বাংলাদেশিকে মারধর, আতঙ্ক

মালয়েশিয়াস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসে সেবা নিতে আসা এক বাংলাদেশিকে মারধর ও অকথ্য ভাষায় গালমন্দ এবং অফিস কক্ষের চেয়ার ভাঙচুর করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

স্থানীয় সময় বুধবার (৯ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে কুয়ালালামপুরের আম্পাং শাখার পাসপোর্ট অফিসের কার্যালয়ে এই ঘটনা ঘটে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক প্রত্যক্ষদর্শী সময় সংবাদকে জানান, একজন প্রবাসী বাংলাদেশি সেবা নিতে গেলে সেখানে লাইনে দাঁড়ানোকে কেন্দ্র করে নির্যাতনের শিকার হন। একপর্যায়ে কক্ষের চেয়ার ভাঙচুর করে দূতাবাসের এক নিরাপত্তা কর্মী। এ ঘটনায় সেবা নিতে আসা প্রবাসী বাংলাদেশিদের মাঝে চরম আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে। বাংলাদেশিকে মারধর ও গালমন্দ করার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ায় ক্ষোভে ফুঁসে উঠেছে প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

এদিকে ঘটনার পরপরই মালয়েশিয়ার বাংলাদেশ হাইকমিশনের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে এ সংক্রান্ত একটি জরুরি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আম্পাংস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের পাসপোর্ট শাখা অফিসে স্থানীয় নিরাপত্তা কোম্পানি কর্তৃক নিয়োজিত কর্মীকে অফিসের শৃঙ্খলাবহির্ভূত আচরণের দায়ে তাকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

বিবৃতিতে আরও জানানো হয়, করোনার সময়ে মালয়েশিয়া সরকারের দেওয়া নিয়মকানুনের মধ্যে সীমিত আকারে বিশেষ ব্যবস্থায় সেবা প্রবান করা হচ্ছে। কিন্তু সম্প্রতি পাসপোর্টের আবেদন অত্যধিক বৃদ্ধি পাওয়ায় হাইকমিশন স্বল্পসংখ্যক কর্মচারীর মাধ্যমে কাঙ্ক্ষিত সেবা প্রদানে হিমশিম খাচ্ছে। হাইকমিশনে আগত সব সেবাপ্রত্যাশীদের ধৈর্যধারণপূর্বক প্রয়োজনীয় সেবাগ্রহণ করার অনুরোধ জানান।

এমন আরো সংবাদ

Back to top button