ফ্লোরিডায় হাতি-গাধার হাড্ডাহাড্ডি লড়াই

বিশ্বের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গণনা চলছে। এরইমধ্যে ফলও আসতে শুরু করেছে কোনো কোনো অঙ্গরাজ্যের। হাড্ডাহাড্ডি লড়াই চলছে ব্যাটলগ্রাউন্ড খ্যাত ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যে।

অঙ্গরাজ্যটির মোট সম্ভাব্য ভোটের ৯৭ শতাংশ এরই মধ্যে গণনা হয়েছে। সেখানে ট্রাম্পের পক্ষে ৫১ দশমিক ২৯ শতাংশ ও বাইডেনের পক্ষে ৪৭ দশমিক ৮ শতাংশ ভোট পড়েছে। ঝুলন্ত রাজ্যটিতে সবশেষ হিসেবে ভোট গণনায় এগিয়ে আছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ফলে মার্কিন নির্বাচনে জয়ের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এই অঙ্গরাজ্যটিতে ২৯টি ইলেকটোরাল ভোট শেষ পর্যন্ত কার দিকে যায় সেদিকে তাকিয়ে আছে বিশ্ব।

আরেক গুরুত্বপূর্ণ ইন্ডিয়ানা অঙ্গরাজ্যে রিপাবলিকান ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রাথমিক ফলাফলে বাইডেনের চেয়ে এগিয়ে আছেন। অঙ্গরাজ্যটিতে মোট ১১টি ইলেকটোরাল ভোট রয়েছে।

এছাড়া ভারমন্ট ও নিউ হ্যাম্পশায়ার অঙ্গরাজ্যের মোট সম্ভাব্য ভোটের ৫ শতাংশ গণনা শেষ হয়েছে। দুই অঙ্গরাজ্যেই এখন পর্যন্ত ট্রাম্প থেকে বড় ব্যবধানে এগিয়ে রয়েছেন জো বাইডেন। ভারমন্টে গণনা হওয়া ভোটের ৬২ দশমিক ৫ শতাংশ বাইডেন ও ৩৪ দশমিক ৬ শতাংশ ট্রাম্প পেয়েছেন।

আর নিউ হ্যাম্পশায়ারের গণনা হওয়া ভোটের ৫৭ দশমিক ৯ শতাংশ বাইডেন ও ৪১ দশমিক ৩ শতাংশ ট্রাম্প পেয়েছেন। ভারমন্ট ও নিউ হ্যাম্পশায়ারে যথাক্রমে ৩টি ও ৪টি করে ইলেকটোরাল ভোট রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে কমপক্ষে ২৭০টি ইলেকটোরাল কলেজে জয় পেতে হবে একজন প্রার্থীকে। তবে সবার চোখ দোদুল্যমান অঙ্গরাজ্যেগুলোর দিকে, যেখানে ইলেকটোরাল কলেজ ভোট বেশি।

ব্যাটলগ্রাউন্ড খ্যাত অঙ্গরাজ্যগুলো মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ-পেনসিলভানিয়া, ফ্লোরিডা, জর্জিয়া, অ্যারিজোনা ও নর্থ ক্যারোলাইনা।

গত নির্বাচনে পপুলার ভোটে হারলেও ইলেকটোরাল কলেজ ভোটে প্রেসিডেন্ট হয়েছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেনকে প্রেসিডেন্ট হতে হলে দোদুল্যমান অঙ্গরাজ্যে ভালো করতে হবে।

এমন আরো সংবাদ

Back to top button