পায়ুপথে আটকে গেল দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ‘অস্ত্র’

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়ের একটি ‘অস্ত্র’ পায়ুপথে আটকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ভর্তি হয়েছিলেন এক ব্যক্তি। সেটি বিস্ফোরণের ভয়ে পুলিশ ও সেনাবাহিনীকে তলব করেন চিকিৎসকরা। পরে অবশ্য কোনো বিপত্তি ছাড়াই ওই ব্যক্তির পায়ুপথ থেকে অস্ত্রটি অপসারণ করা হয় বলে ব্রিটিশ গণমাধ্যম দ্য সানের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিম ইংল্যান্ডের গ্লুচেস্টারশায়ারে। এ ব্যাপারে পুলিশ এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এক ব্যক্তি পায়ুপথে ‘অস্ত্র’ আটকে হাসপাতালে ভর্তি হন। স্থানীয় সময় বুধবার সকালে গ্লুচেস্টারশায়ার রয়্যাল হাসপাতাল থেকে পুলিশকে এই ঘটনা জানানো হয়।

তবে চিকিৎসকরা পুলিশ আসার আগেই অস্ত্রটি ওই ব্যক্তির পায়ুপথ থেকে অপসারণ করতে সক্ষম হন। ৫৭ মিলিমিটার দৈর্ঘ্যের শেলটি সক্রিয় ছিল না বলে অপসারণের পর জানা গেছে।

এ ব্যাপারে সেনাবাহিনীর এক মুখপাত্র জানিয়েছে, স্থানীয় পুলিশের অনুরোধে সেনাবাহিনীর বোম্ব ডিসপোজাল দলকে ডাকা হয়েছিল।

এদিকে, দ্য সানের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই ব্যক্তি চিকিৎসকদের জানিয়েছেন, ওই অস্ত্রের ওপর পিছলে পড়ে যাওয়ার পর সেটি তার পায়ুপথে আটকে যায়।

 

এমন আরো সংবাদ

Back to top button