এ বছরও বাংলাদেশিদের হজ পালন অনিশ্চিত

করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে এ বছরও হজ পালন অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে বাংলাদেশিদের জন্য। হজের মাত্র আর কয়েকমাস বাকি। এখনও সৌদি আরব মুসলিম উম্মাহর সর্ব পবিত্র এ আয়োজন নিয়ে কোনো ঘোষণা দেয়নি।

গত বছর স্বল্প পরিসরে নিজ দেশের হজ কঙ্ক্ষিতদের নিয়ে হজ পালন করে সৌদি সরকার। পরবর্তীতে ওমরাহর জন্য অনুমতি দিলেও বেধে দেওয়া হয় শর্ত। এবার হজ পালন করা হবে ধরে নিলেও বিদেশিদের নিয়ে কোনো নির্দেশনা দেয়নি হজ কর্তৃপক্ষ।

অন্যান্য দেশগুলোর মতো বাংলাদেশ থেকেও উল্লেখযোগ্য হজ প্রত্যাশীরা সৌদি গমন করেন। এবার বাংলাদেশিদের নিয়ে এবার কোনো তথ্য দেয়নি সৌদি কর্তৃপক্ষ। হজ সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বাংলাদেশের প্রস্তুতি থাকলেও সৌদি সরকারের নির্দেশনা না পাওয়ায় বাংলাদেশ থেকে হজে অংশগ্রহণের বিষয়টি এখনও অনিশ্চিত।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, সম্প্রতি সৌদি আরবের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সর্বোচ্চ ৬০ হাজার মানুষের অংশগ্রহণে হজ আয়োজনের জন্য দেশটির হজ ও ওমরা মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ করেছে। এতে বলা হয়, ৬০ হাজারের মধ্যে ১৫ হাজার সৌদি নাগরিক ও বিভিন্ন দেশে থেকে ৪৫ হাজার বিদেশি হজ প্রত্যাশী অংশ নিতে পারবেন। অংশগ্রহণকারীদের অবশ্যই করোনার টিকার দুই ডোজ নেওয়া থাকতে হবে। টিকার প্রথম ডোজ ঈদুল ফিতরের আগে যারা নিয়েছেন তারা সুযোগ পাবেন। হজযাত্রীদের বয়স ১৮-৬০ বছরে মধ্যে হতে হবে।

এ ছাড়া স্বাস্থ্যবিধিসহ বিভিন্ন বিষয়ে কঠোর নির্দেশনা পালনের সুপারিশ করে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এদিকে সৌদি সরকারের ঘোষণা না থাকলেও প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়। বাংলাদেশের নিবন্ধিত হজযাত্রীদের করোনার ভ্যাকসিন দিতে বলা হয়েছে মার্চ মাসেই। ফলে, সৌদি কর্তৃপক্ষ কঠিন শর্ত আরোপ না করে অনুমতি দিলে বাংলাদেশি হজযাত্রীরা চলতি বছর হজ করার সুযোগ পেতে পারেন।

 

এমন আরো সংবাদ

Back to top button