স্বামীকে নিয়ে আলাদা থাকতে না পেরে গৃহবধূর আত্মহত্যা

স্বামীকে নিয়ে আলাদা থাকার বিষয়ে দুই পরিবারের কেউ রাজি হচ্ছিল না। এ নিয়ে অভিমান করে আত্মহত্যা করেছেন চেমন আরা বেগম রোকসানা (৪০) নামে এক গৃহবধূ। এমন ঘটনা ঘটেছে গত মঙ্গলবার রাতে চট্টগ্রাম নগরীর লালখান বাজার ব্র্যাক অফিস সংলগ্ন এলাকায়। রোকসানার স্বামী গিয়াস উদ্দীন বাবু পেশায় ইলেক্ট্রিক মিস্ত্রি।

জানা যায়, এটি রোকসানা ও তার স্বামীর দ্বিতীয় সংসার। এই সংসারে তাদের কোনো সন্তান ছিল না। রোকসানার আগের সংসারে দুই ছেলে ও দুই মেয়ে আছে। মেয়েরা বিবাহিত, বড় ছেলে দুবাই থাকেন। ছোট ছেলে নগরীর একটি বেসরকারি কলেজে পড়ে।

খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহীনুজ্জামান বলেন, মঙ্গলবার ইফতারের পর পরিবারের পক্ষ থেকে আমাদের জানানো হয়- তিনি আত্মহত্যা করেছেন। আমরা ঘটনাস্থলে আসার আগেই গৃহবধূর স্বামী স্থানীয়দের নিয়ে ঘরের দরজা ভেঙে ঝুলন্ত সেই লাশ নামিয়ে ফেলেন। প্রাথমিকভাবে আত্মহত্যা ধারণা করা হলেও লাশ ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

নিহত গৃহবধূর ভাই মো. রফিক জানান, আত্মহত্যার আগের দিন সোমবার স্বামী গিয়াস উদ্দিনের সঙ্গে রোকসানার ঝগড়া হয়। মূলত স্বামীকে নিয়ে আলাদা থাকতে চেয়েছিলেন তিনি। আর সেই চাওয়াকে কেন্দ্র করেই এ ঝগড়া। এর জের ধরেই পরের দিন অর্থাৎ মঙ্গলবার রোকসানা আত্মহত্যা করেছেন নাকি তাকে হত্যা করা হয়েছে, সেটি বুঝতে পারছি না। আমরা লাশের ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনের জন্য অপেক্ষা করছি। এর পর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

এমন আরো সংবাদ

Back to top button