বসুরহাটে ১৪৪ ধারা

নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করে সব ধরণের সভা-সমাবেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে স্থানীয় প্রশাসন। আজ সোমবার সকাল ছয়টা থেকে সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত এ বিধি কার্যকর থাকবে।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো.জিয়াউল হক মীর স্বাক্ষরিত এক আদেশে জানানো হয়েছে। তিনি জানান, দুই পক্ষ বসুরহাটে পাল্টাপাল্টি একই স্থানে সমাবেশ ডাকায় সমগ্র বসুরহাট পৌরসভায় এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। এ সময় সব ধরণের সভা সমাবেশ এই এলাকায় নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

এদিকে, রোববার রাত ১১টায় বিষয়টি নিয়ে গণমাধ্যমে কথা বলেন জেলা প্রশাসক খোরশেদ আলম খান। ১৪৪ ধারার বিষয়টি নিশ্চিত করে তিনি বলেন, এ সংক্রান্ত নির্দেশনা জারি করে ইতিমধ্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জিয়াউল হক মীর পৌর এলাকায় মাইকিং শুরু করেছেন। এ সময় সব ধরনের সভসমাবেশ ও চারজনের অধিক জমায়েত নিষিদ্ধ থাকবে।

এর আগে শনিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদল সোমবার দুপুরে বসুরহাট বাজারের রূপালী চত্বরে বাংলাদেশ আ. লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দকে নিয়ে মিথ্যাচারের প্রতিবাদে সমাবেশ আহ্বান করে। পরে একই স্থানে দোয়া মাহফিলের আয়োজন করেন পৌর মেয়র আবদুল কাদের মির্জা।

এর আগে কোম্পানীগঞ্জের মেয়র আবদুল কাদের মির্জা ও উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের সমর্থকদের মধ্যে শুক্রবার বিকেল ৫টার দিকে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ২০জন আহত হন। আহতদের মধ্যে সাংবাদিক বুরহান উদ্দিন মুজাক্কিরসহ ৪ জন গুলিবিদ্ধ হন। পরে বুরহান মারা যান। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কয়েকটি ফাঁকা গুলি ছোঁড়ে।

 

এমন আরো সংবাদ

Check Also
Close
Back to top button